৩ মে শুরু হচ্ছে চার ধাম যাত্রা, নাম লিখিয়েছেন লক্ষাধিক যাত্রী

দেহরাদুন: মে মাসের গোড়াতেই শুরু হয়ে যাচ্ছে চার ধাম যাত্রা। আর এর জন্য ইতিমধ্যেই লক্ষাধিক তীর্থযাত্রী নিজেদের নাম নথিভুক্ত (রেজিস্ট্রেশন) করেছেন। যাত্রীদের সুরক্ষা ও সুস্বাস্থ্য সুনিশ্চিত করার জন্য উত্তরাখণ্ড পর্যটন দফতর এ বছর থেকে নাম নথিভুক্ত করার ব্যাপারটি বাধ্যতামূলক করেছে।

চার ধাম যাত্রা শুরু হচ্ছে ৩ মে। ওই দিন গঙ্গোত্রী ও যমুনোত্রীর দরজা যাত্রীদের জন্য খুলে দেওয়া হবে। ৩ দিন পরে ৬ মে কেদারনাথ মন্দিরের দরজা খুলবে। বদরীনাথ মন্দিরের দরজা খুলবে ৮ মে।

চার ধাম যাত্রার জন্য এখনও পর্যন্ত ১ লক্ষ ২ হাজার ৫০৮ জন তীর্থযাত্রী নাম নথিভুক্ত করিয়েছেন। সব চেয়ে বেশি রেজিস্ট্রেশন হয়েছে কেদারনাথের জন্য। এ পর্যন্ত ৪১১০৭ জন কেদারনাথের জন্য নাম লিখিয়েছেন। বদরীনাথ দর্শন করতে চান ২৯৪৮৮ জন। গঙ্গোত্রী ও যমুনোত্রীর জন্য নাম লিখিয়েছেন যথাক্রমে ১৬৮০৪ জন ও ১৫৮২৯ জন। রাজ্যের পর্যটন সেক্রেটারি দিলীপ জওয়ালকর এই তথ্য দিয়েছেন।

করোনা-পরিস্থিতি অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে আসায় এ বার চার ধাম যাত্রায় তীর্থযাত্রী সমাগম ভালোই হবে বলে আশা করা যায়। এই প্রথম চার ধাম দর্শনের জন্য যাত্রীদের নাম রেজিস্ট্রি করতে হচ্ছে। পর্যটন দফতরের ওয়েবসাইটে গিয়ে নাম রেজিস্ট্রি করা যাচ্ছে। নাম নথিভুক্ত করার জন্য অফ-লাইন সুবিধাও রয়েছে।

এ ছাড়া যে সব যাত্রী চার ধাম যাত্রার জন্য আগাম বুকিং না করেই চলে আসবেন তাঁদেরও ফেরানো হবে না। চার ধামের পথে বিভিন্ন জায়গায় কাউন্টার করা হচ্ছে। সেখানে অন-স্পট রেজিস্ট্রেশন করা যাবে।

চার ধাম যাত্রার ব্যাপারে যাত্রীদের সব রকম তথ্য জানানোর জন্য দেহরাদুনে খোলা হয়েছে কনট্রোল রুম। ১৩৪৬ – এই টোল ফ্রি নম্বরে ফোন করা যাবে। তা ছাড়া চারটে হেল্পলাইন নম্বর রয়েছে – ০১৩৫-১৩৬৪, ০১৩৫-২৫৫৯৮৯৮, ০১৩৫-২৫৫২৬২৭ এবং ০১৩৫-৩৫২০১০০।

চার ধামের সঙ্গেই খুলে যাচ্ছে পঞ্চকেদারের তিন কেদার। তুঙ্গনাথ মন্দির খুলছে ৬ মে এবং মদমহেশ্বর ও রুদ্রনাথ মন্দির খুলছে ১৯ মে। এই খবর পাওয়া গিয়েছে বদরীনাথ কেদারনাথ টেম্পল কমিটি সূত্রে।

(তথ্য সহায়তা: সৌমিশ্র মিত্র, প্রচেষ্টা ট্যুরিজম, হরিদ্বার)

আরও পড়তে পারেন

আকাশপথে মাত্র ৫ মিনিটেই চলুন ধরমশালা থেকে ম্যাকলিয়ডগঞ্জ

বহু ট্রেনে এখনও চাদর-কম্বল মিলছে না, অভিযোগ যাত্রীদের, ব্যাখ্যা দিল রেল

বর্ষার আগমন দেখতে চলুন কোভলম

হাওয়া বদলের পশ্চিমে – বর্ষশেষে শিমুলতলা চলুন ট্র্যাভেলিজমের সঙ্গে

আরও পড়তে পারেন

Leave a Reply

Your email address will not be published.