Uncategorized

বুকে করে রাখুন বিষ্ণুপুরের স্মৃতি, উদ্যোগ মহকুমা প্রশাসনের

bishnupur tourism
ইন্দ্রাণী সেন

বাঁকুড়া: সাধ্যের মধ্যে সাধ পূরণ করতে এগিয়ে এল বিষ্ণুপুর মহকুমা প্রশাসন। স্মৃতিচিহ্নস্বরূপ বিষ্ণুপুরকে পর্যটকদের কাছে আরও আকর্ষণীয় করে তুলতে বুধবার বিষ্ণুপুর রাসমঞ্চ প্রাঙ্গণে বিষ্ণুপুর ট্যুরিজম ডট কম ব্র্যান্ডের পোশাকের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন মহকুমাশাসক মানস মণ্ডল। সরকারস্বীকৃত দশ জন ট্যুরিস্টগাইড টি-শার্ট (গেঞ্জি) পরে রীতিমতো র‍্যাম্প ওয়াক করে রাসমঞ্চ মাতালেন।পরে মহকুমাকরণে সাংবাদিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। উপস্থিত ছিলেন বিষ্ণুপুরের এসডিপিও সুকোমলকান্তি দাস। সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত প্রত্যেক সাংবাদিকের হাতে বিষ্ণুপুর ট্যুরিজম ডট কম ব্র্যান্ডের পোশাক উপহার তুলে দেন মহকুমাশাসক।

আরও পড়ুন রাজ্য জুড়ে রেকর্ড সংখ্যক পর্যটক আবাস তৈরির উদ্যোগ পর্যটন দফতরের

বিষ্ণুপুর মহকুমাশাসক মানস মণ্ডল বলেন, বুধবার সরকারি ভাবে চোদ্দোটি ডিজাইনের গেঞ্জি লঞ্চ করা হয়েছে। বিষ্ণুপুর লোগো প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিল্পীদের ডিজাইন ও মহকুমা প্রশাসনের নিজস্ব ভাবনায় টি শার্টে ( গেঞ্জি) ডিজাইন বানানো হয়েছে। হঠাৎই এই ধরনের উদ্যোগ প্রসঙ্গে মহকুমাশাসক জানান, মূলত বিষ্ণুপুরের পর্যটন নিয়ে প্রচারের জন্যই এই উদ্যোগ। বিষ্ণুপুর মানেই বালুচরী। আর বিষ্ণুপুর বেড়াতে এসে যে সকলেই বালুচরী কিনবেন বা কিনতে পারবেন তা নয়। তাই ন্যায্য মূল্যের এই পোশাকের ভাবনা। বেড়ানোর স্মৃতিচিহ্নস্বরূপ সাধারণ মানুষও এই পোশাক সংগ্রহে রাখতে পারবেন। এই বিষয়ে তিনি আরও জানান, বিভিন্ন জায়গায় ঘুরতে গিয়ে আমরা অনেক কিছুই কিনে থাকি। বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানের ছবি-সহ ন্যায্য মূল্যের গেঞ্জি এখন বেশ জনপ্রিয়। তাই এই বিষয়ে বিষ্ণুপুরই বা কেন পিছিয়ে থাকবে? তাই এ বার বিষ্ণুপুরের যদুভট্ট থেকে লন্ঠন আবার জোড়বাংলো মন্দির থেকে রাসমঞ্চ, পর্যটকরা এক টুকরো বিষ্ণুপুরকে বুকে নিয়ে পোড়ামাটির এই শহরকে স্মৃতিতে চিরন্তন করে রাখবেন।

bishnupur tourism branded t shirt
বিষ্ণুপুরের স্মৃতি নিয়ে টি শার্ট। নিজস্ব চিত্র।

খুব পরতে ইচ্ছা করছে এখনই? না, একটু অপেক্ষা করতে হবে। আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হলেও এখনও পর্যন্ত বাজারে আসেনি এই বিশেষ গেঞ্জি। দাম নির্ধারণও বাকি। তবে একান্তই যদি খুব ইচ্ছা করে তবে সপ্তাহান্তে আপনাকে আসতেই হবে বিষ্ণুপুর জোড়বাংলো প্রাঙ্গণে পোড়ামাটির হাটে। স্বয়ম্ভর গোষ্ঠীর মহিলারা এই পোশাক বিক্রি করবেন। তবে মহকুমা প্রশাসন সূত্রের খবর, খুব শীঘ্রই এই পোশাক বাজারজাত করা হবে অবশ্যই বিষ্ণুপুর ট্যুরিজম ডট কম-এর ব্যানারে। পরবর্তী কালে সিল্ক বা অন্য ধরনের কাপড়েও এই ধরনের পোশাক মিলবে।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

You may also like