রামায়ণ এক্সপ্রেসে সফর করতে চান, এই তথ্যগুলো জেনে নিন

ভ্রমণ অনলাইনডেস্ক: বুধবার যাত্রা শুরু করেছে রামায়ণকে কেন্দ্র করে দেশের প্রথম পর্যটন ট্রেন ‘শ্রী রামায়ণ এক্সপ্রেস’। দিল্লিতে এই ট্রেনের যাত্রার সূচনা করেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়াল। মোট ১৬ দিনের এই প্যাকেজ ট্যুরে রামের সঙ্গে সম্পর্কিত অনেক জায়গাই ঘুরিয়ে দেখানো হবে ট্রেনে।

যে পথ দিয়ে যাবে রামায়ণ এক্সপ্রেস

রামায়ণ এক্সপ্রেসে ভ্রমণের দুটো অংশ রয়েছে। একটি ভারত এবং অন্যটি শ্রীলঙ্কায়। ভারতের বেশকিছু শহর থেকে এই ট্রেন যাত্রা শুরু করেছে। তবে দিল্লি থেকে যে ট্রেন রওনা হয়েছে, সেটি প্রথমে থেমেছে অযোধ্যায়। রামচন্দ্রের জনস্থান ঘুরিয়ে ট্রেনটির থামার কথা হনুমান গড়ি রামকোট এবং কনক ভবন মন্দির স্টেশনে। এর পর ট্রেনটি নন্দিগ্রাম, সীতামাঢ়ি, বারাণসী, জনকপুর, শিংবেরপুর, নাসিক, প্রয়াগ, চিত্রকূট, হাম্পি এবং রামেশ্বরমে ট্রেনটি যাবে।

আরও পড়ুন গাড়োয়ালের অলিগলিতে / প্রথম পর্ব : ধনৌলটি ছুঁয়ে নিউ টিহরী

ট্রেন যাত্রার ভাড়া

মোট ৮০০ জন যাত্রী এই ট্রেনে যেতে পারে। ভারতের অংশে ঘোরার জন্য জনপ্রতি ১৫,১২০ টাকা নেওয়া হচ্ছে। এই ভাড়ায় থাকা, খাওয়া-সহ যানবাহনের যাবতীয় খরচ ধরা রয়েছে। তবে এই সফরের শ্রীলঙ্কা অংশটির ভাড়া আলাদা ভাবে নেওয়া হবে। শ্রীলঙ্কায় যাঁরা যেতে চান, তাঁদের চেন্নাই থেকে কলম্বোর বিমানে উঠতে হবে। পাঁচ রাত্রি, ছ’দিনের প্যাকেজে কলম্বো ছাড়াও ক্যান্ডি এবং শৈলশহর নুয়ারা এলিয়াও ঘোরানো হবে। এর জন্য জনপ্রতি ৩৬, ৯৭০টাকা বাড়তি দিতে হবে।

আপাতত দিল্লি থেকে এই ট্রেন যাত্রা শুরু করলেও আগামী কয়েকদিনের মধ্যে জয়পুর, রাজকোট এবং মাদুরাই থেকেও এই ট্রেন যাত্রা শুরু করবে।

Leave a Reply