তাজমহল, লালকেল্লা দর্শনেও আর বাধা রইল না, সোমবার খুলে যাচ্ছে সব পুরাতাত্ত্বিক স্থল

ভ্রমণঅনলাইন ডেস্ক: আগামী ৬ জুলাই সোমবার থেকে দেশের সমস্ত প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হচ্ছে। কেন্দ্রীয় সংস্কৃতিমন্ত্রী প্রহ্লাদ পটেল শুক্রবার এ কথা ঘোষণা করেছে।

মন্ত্রী বলেছেন, ভারতের প্রত্নতাত্ত্বিক সর্বেক্ষণ (এএসআই) যে সব পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শনের দেখভাল করে, সেগুলো সব পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হচ্ছে।  

সুতরাং এখন আগরা গেলে তাজমহল, আগরা ফোর্ট, ফতেপুর সিক্রি-সহ সেখানকার অন্যান্য পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শন দর্শনে আর বাধা রইল না। ঠিক তেমনই কেউ যদি দিল্লি যান, তা হলে সেখানে লালকেল্লা, কুতব মিনার, হুমায়ুনের সমাধি বা পুরানা কিল্লা দেখায় আর বাধা রইল না।

সারা দেশে এএসআই সংরক্ষিত হাজার তিনেক ঐতিহ্যশালী ভবন রয়েছে। তার মধ্যে ধর্মীয় অনুষ্ঠান পালন করার জন্য ৮২০টি খুলে দেওয়া হয় জুন মাসের গোড়ায়, যখন দেশ জুড়ে প্রথম দফার আনলক পর্ব শুরু হয়।

মার্চের শেষ সপ্তাহে যখন দেশ জুড়ে লকডাউন জারি হয় তখন এএসআই সংরক্ষিত সাড়ে তিন হাজারেরও বেশি সৌধ এবং পুরাতাত্ত্বিক স্থল পর্যটকদের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয়।

জানা গিয়েছে, পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শনের দেখভালের দায়িত্বে যে সব আধিকারিক রয়েছে তাঁদের শারীরিক দূরত্বের নিয়ম এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

ও দিকে দর্শনার্থীদেরও মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। স্বাস্থ্য মন্ত্রক ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের জারি করা নির্দেশিকা পুরোপুরি মানা হচ্ছে কি না সে দিকে নজর রাখবে রাজ্য ও জেলা প্রশাসন।

আর প্রকাশ্য স্থানে এক সঙ্গে কত জন দর্শনার্থী ঢুকতে পারবেন তা নির্দিষ্ট করে দেবে পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শন কর্তৃপক্ষ।           

Leave a Reply