২৪ দিনের রাশিয়া ভ্রমণ, সঙ্গে টিকার দু’টো ডোজ, মাথাপিছু ১.২৯ লক্ষ টাকা

ভ্রমণঅনলাইন ডেস্ক: কোভিড ১৯-এর দ্বিতীয় ঢেউয়ের (coronavirus second wave) মোকাবিলায় জেরবার ভারত। সংক্রমণের হার খুব বেশি। এরই রয়েছে টিকার সংকট। তরুণ প্রজন্ম তো দূরের কথা বয়স্ক মানুষজনও এখনও অনেকে টিকা পাননি।

তবে চিন্তা করবেন না। পকেটে রেস্তো থাকলে চলে যেতে পারেন রাশিয়া। রথ দেখা কলা বেচা, দু’টোই হবে। রাশিয়ান টিকা স্পুটনিক ভি-এর দু’টো ডোজ পাওয়া যাবে এবং তার সঙ্গে রাশিয়াও ঘোরা হয়ে যাবে।

রাশিয়া গিয়ে টিকা নিয়ে আসার প্যাকেজ ট্যুর চালু করে দিয়েছে দুবাইয়ের অ্যারাবিয়ান নাইটস ট্যুর। দিল্লি থেকে মস্কো ২৩ রাত ২৪ দিনের প্যাকেজ। টিকার দু’টো ডোজ নেওয়ার পাশাপাশি ঘুরে নেবেন মস্কো ও সেন্ট পিটার্সবার্গ। খরচ মাথাপিছু পড়বে ১.২৯ লক্ষ টাকা।

অ্যারাবিয়ান নাইটস ট্যুর-এর ডিরেক্টর অব সেলস (ভারত) সুজিত সিং জানিয়েছেন, এই প্যাকেজের সব আসন আপাতত দুবাইয়ের টিকাপ্রার্থীরা কিনে নিয়েছেন। আপাতত কোনো ভারতীয়ের জায়গা হয়নি। এরোফ্লট সপ্তাহে দু’ দিন দিল্লি থেকে মস্কো উড়ান চালায়। এই উড়ানের সব টিকিট বিক্রি হয়ে গিয়েছে। কিন্তু ভারতের অন্যান্য জায়গা থেকেও এই প্যাকেজের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। সেই চাহিদা মেটাতে অন্যান্য শহর থেকে চার্টার্ড উড়ানের ব্যবস্থা করার কথা ভাবা হচ্ছে।

মস্কো থেকে এই ভ্রমণের সমন্বয়সাধন করছে ভ্রমণ সংস্থা ‘ট্রাভেলবাডি’। তাদের জেনারেল ডিরেক্টর ক্রিস্টিনা অ্যাভেটিসিয়ান ইটিট্রাভেলওয়ার্ল্ডকে বলেন, “প্যাকেজ অনুসারে, আপনি যে দিন মস্কোয় নামবেন, সে দিন রেজিস্ট্রি করতে হবে। পরের দিন টিকার প্রথম ডোজ দেওয়া হবে। তার পর আপনি ঘোরাঘুরি করুন, ৪ দিনের জন্য সেন্ট পিটার্সবার্গ ঘুরে আসুন। ২১ তম দিনে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিন। এবং ২৩তম রাতে ফেরার উড়ান ধরুন।”

অ্যাভেটিসিয়ান জানান, “মস্কোয় টিকা নেওয়া খুব সোজা। যে কোনো শপিং মলে ঢুকে পড়ুন, পাসপোর্ট আর রেজিস্ট্রেশন স্লিপ দেখান এবং টিকা নিন।”

প্যাকেজের খুঁটিনাটি

এই ভ্রমণ প্যাকেজে রয়েছে –

(১) দিল্লি-মস্কো-দিল্লি বিমানের টিকিট

(২) সেন্ট পিটার্সবার্গ থ্রি স্টার হোটেলে ৪ দিন কাটানো

(৩) মস্কোয় থ্রি স্টার হোটেলে ২০ দিন কাটানো

(৪) স্পুটনিক ভি টিকার দু’টি ডোজ (১৮+ বয়স হলেই হবে) ও সার্টিফিকেট

(৫) মস্কো-পিটার্সবার্গ-মস্কো ট্রেনের টিকিট

(৬) ২৪টি প্রাতরাশ ও ২৪টি ভারতীয় ডিনার

(৭) ইন্টারপ্রেটার-সহ গাড়ি করে ঘোরা

(৮) মস্কোয় ৩ দিনের এক্সকারশন (সব প্রধান প্রধান দ্রষ্টব্য স্থান দেখা)

(৯) সেন্ট পিটার্সবার্গে ৩ দিনের এক্সকারশন (সব প্রধান প্রধান দ্রষ্টব্য স্থান দেখা)

(১০) রাশিয়ান ট্যুরিস্ট ভিস সাপোর্ট

(১১) এক স্থান থেকে অন্য স্থানে যাওয়ার সমস্ত খরচ, গাইডের সঙ্গে সাইটসিয়িং এবং প্রবেশ দক্ষিণা।

সূত্র: খবরঅনলাইন   

আরও পড়ুন: দর্শনার্থীদের জন্য ফের বন্ধ হয়ে গেল কালীঘাট ও তারাপীঠের দরজা

আরও পড়তে পারেন

Leave a Reply

Your email address will not be published.