গত দু’ দিন ধরে না-জানা কেরলের আরও কিছুটা অংশ দেখে এগিয়ে চললাম কর্নাটকের উদ্দেশে।

আরও পড়ুন

শ্রয়ণ সেন ভাস্কো ডা গামার কালিকট কোঝিকোড় নামেই বেশি পরিচিত। তবে স্থানীয় উচ্চারণে এই শহর কোড়িকোড়। প্রাচীন শহর, এখনও সে ভাবে অতি আধুনিকতার ছোঁয়া লাগেনি।

আরও পড়ুন

শ্রয়ণ সেন গাড়িটা জোরে ব্রেক কষে লক্কিড়ি ভিউ পয়েন্টে দাঁড়াতেই আমার সংবিৎ ফিরল। বেঙ্গালুরু থেকে ওয়েনাড় হয়ে কোড়িকোড় যাওয়ার পথে ফিরে গিয়েছিলাম তিন বছর আগে।

আরও পড়ুন

শ্রয়ণ সেন কেরলের ওয়েনাড়। পর্যটক-মানচিত্রে অতটা পরিচিত নাম না হলেও পর্যটন-বৈচিত্র্যে যে কতটা ভরপুর তা অনেকটাই বুঝলাম এই সুলতান বাথেরি আসার পথে। কর্নাটকের কুর্গ থেকে

আরও পড়ুন

শ্রয়ণ সেন “দাদা, ওটা কী পাহাড়?” ন্যাড়া মাথার একটা পাহাড়কে লক্ষ করে দারা সিংহজিকে প্রশ্নটা করেই ফেললাম। আমার দু’ দিকে দু’টো পাহাড় দেখা যাচ্ছে। বাঁ

আরও পড়ুন

সুব্রত গোস্বামী ভোরে উঠে চটজলদি স্নান সেরে রেডি হয়ে নিলাম। আজ আমাদের গন্তব্য জয়ন্তী ও বক্সা পাহাড়। নানা গাছগাছালিতে ভরা এই পাহাড়ে রয়েছে একটি দুর্গও।

আরও পড়ুন

সুব্রত গোস্বামী ‘হৃদকমল’-এ এসে মনটা খুশিতে ভরে গেল। ময়নাগুড়ির শহুরে এলাকা ছেড়ে কোলাহলমুক্ত সবুজের মাঝে এই অতিথিশালা। অতিথিশালার কর্মীদের সব দিকে সজাগ দৃষ্টি। সারা রাত

আরও পড়ুন

সুব্রত গোস্বামী গত আট মাস ধরে করোনার ভয়ে গৃহবন্দি থাকতে থাকতে প্রাণ যেন হাঁসফাঁস করছিল। ছটফট করছিল উচাটন মন, খালি ভাবছিলাম কবে একটু পাহাড়ে যাব।

আরও পড়ুন
view from shantiniketan guest house

আমাদের ছোটো নদী। নাম তার ব্রহ্মাণী। মধ্য-কার্তিকে অর্থাৎ নভেম্বরের শুরুতেও টলটলে জল তার। ছলাৎ ছলাৎ শব্দে সে এগিয়ে চলেছে নিজ গন্তব্যে। সম্রাটদা বললেন, “মাত্র ৫৫

আরও পড়ুন

‘কোঁ কোঁর কোঁ’ মোরগের ডাকে ঘুম ভেঙে গেল। ভোর সাড়ে পাঁচটা। কলকাতায় থাকতে এই ডাকটা তো শুনতেই পাওয়া যায় না। তাই আজকের সকালটা সত্যিই একটা

আরও পড়ুন